ফরিদগঞ্জের পুলিশের গুলিতে আহত রুবেলের অবশেষে মৃত্যু

ফরিদগঞ্জ (চাঁদপুর) প্রতিনিধি: ফরিদগঞ্জে গত তিন সপ্তাহ আগে পুলিশের গুলিতে আহত একাধিক মামলার আসামি রুবেল শাহ (৩০) মারা গেছেন। শুক্রবার (২ এপ্রিল) সকালে রাজধানী ঢাকার মিরপুর সড়কের শ্যামলীর রে মেডি কেয়ার নামে বেসরকারি একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। মৃত রুবেল শাহর ছোটভাই মুরাদ শাহ মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, গত ১২ মার্চ সন্ধ্যায় রুবেল শাহকে গ্রেফতার করতে তার গ্রামের বাড়ি ফরিদগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম লাড়ুয়া এলাকায় অভিযান চালায় ফরিদগঞ্জ থানা পুলিশ। তখন পুলিশ দাবি করেছিল, আসামি রুবেল শাহকে গ্রেফতার করতে গেলে সে পুলিশের ওপর ধারলো অস্ত্র নিয়ে হামলা করে। এ সময় আত্মরক্ষায় পুলিশ গুলি করলে সে গুরুতর আহত হয়। এসময় এএসআই জামশেদ ও এএসআই শফিক নামে দুজন পুলিশ কর্মকর্তা আহত হন।

উপজেলার পশ্চিম লাড়ুয়া গ্রামের নজরুল শাহর ছেলে মো. রুবেল শাহ বিরুদ্ধে হাইমচরে প্রধানমন্ত্রীর সফরকালে তাকে হুমকিসহ (জি আর ৭/১৮) একই থানায় ছয়টি মামলা রয়েছে।
গুলিবিদ্ধ অবস্থায় রুবেলকে উদ্ধার করে প্রথমে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখান থেতে তার পরিবার উন্নত চিকিৎসার জন্য শ্যামলী এলাকায় রে মেডি কেয়ার নামে বেসরকারি একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে শুক্রবার ( ২ এপ্রিল) সকালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান সে ।

মৃত রুবেল শাহের ছোট ভাই মুরাদ শাহ্ জানান, তার ভাইকে বিনা কারণে পুলিশ গুলি করে হত্যা করেছে। তিনি আরো জানান, রুবেল শাহের পিঠের ডান পাশ দিয়ে গুলি ঢুকে বুকের সামনে দিকে বের হয়ে যায়। ফরিদগঞ্জ থানার ওসি(তদন্ত) মো: বাহার মিয়া রুবেলের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *